/
/
/
ঐতিহাসিক ৭ই মার্চ; একজন বঙ্গবন্ধু, একটি স্বাধীন বাংলাদেশ
ঐতিহাসিক ৭ই মার্চ; একজন বঙ্গবন্ধু, একটি স্বাধীন বাংলাদেশ
14 views
Relaks Limited
আপলোড সময় : 24 ঘন্টা আগে
ঐতিহাসিক ৭ই মার্চ; একজন বঙ্গবন্ধু, একটি স্বাধীন বাংলাদেশ
Print Friendly, PDF & Email

বাঙালি জাতির স্বাধীনতা সংগ্রামে ৭ মার্চ একটি গুরুত্বপূর্ণ তাৎপর্যতা বহন করে।সাতই মার্চের ভাষণ ১৯৭১ খ্রিঃ ৭ই মার্চ ঢাকার রমনায় অবস্থিত রেসকোর্স ময়দানে (বর্তমান সোহরাওয়ার্দী উদ্যান) অনুষ্ঠিত জনসভায় শেখ মুজিবুর রহমান কর্তৃক প্রদত্ত এক ঐতিহাসিক ভাষণ। তিনি উক্ত ভাষণ বিকেল ২টা ৪৫ মিনিটে শুরু করে বিকেল ৩টা ৩ মিনিটে শেষ করেন। ৭ই মার্চের ভাষণ ১৮ মিনিট স্থায়ী হয়।

১৯৭১ এর ৭ই মার্চের ভাষণে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান তৎকালীন পূর্ব পাকিস্তানের (বর্তমানে বাংলাদেশ) বাঙালিদেরকে স্বাধীনতা সংগ্রামের জন্য প্রস্তুত হওয়ার আহ্বান জানান। এই ভাষণের একটি লিখিত ভাষ্য অচিরেই বিতরণ করা হয়েছিল। এটি তাজউদ্দীন আহমদ কর্তৃক কিছু পরিমার্জিত হয়েছিল। পরিমার্জনার মূল উদ্দেশ্য ছিল সামরিক আইন প্রত্যাহার এবং নির্বাচিত জনপ্রতিনিধিদের কাছে ক্ষমতা হস্তান্তরের দাবীটির ওপর গুরুত্ব আরোপ করা।

৭ই মার্চের ভাষণটি ১৩টি ভাষায় অনুবাদ করা হয়। ১৩ তম হিসাবে মাহাতো নৃতাত্ত্বিক জাতিগোষ্ঠীর কুড়মালি ভাষায় ভাষণটি অনুবাদ করা হয়, যা নৃ তাত্ত্বিক জনগোষ্ঠীর ভাষায় ১ম অনুবাদ।নিউজউইক ম্যাগাজিন শেখ মুজিবুর রহমানকে রাজনীতির কবি হিসেবে উল্লেখ করে। ২০১৭ সালের ৩০ শে অক্টোবর ইউনেস্কো এই ভাষণকে ঐতিহাসিক দলিল হিসেবে স্বীকৃতি দেয়।

এই ভাষণে সামগ্রিক পরিস্থিতির পর্যালোচনা পশ্চিম পাকিস্তানি রাজনীতিকদের ভূমিকার ওপর আলোকপাত,
সামরিক আইন প্রত্যাহারের দাবি জানানো,অত্যাচার ও সামরিক আগ্রাসন মোকাবিলার জন্য বাঙালিদের আহ্বান জানানো,দাবী আদায় না-হওয়া পর্যন্ত পূর্ব পাকিস্তানে সার্বিক হরতাল চালিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত প্রদান,নিগ্রহ ও আক্রমণ প্রতিরোধের আহ্বান এবং বাঙালিকে স্বাধীনতার মন্ত্রে উজ্জীবিত করা নিয়ে আলোচনা করা হয়।

২০১৭ সালের ৩০শে অক্টোবরে ইউনেস্কো ৭ই মার্চের ভাষণকে “ডকুমেন্টারি হেরিটেজ” (বিশ্ব প্রামাণ্য ঐতিহ্য) হিসেবে স্বীকৃতি দেয়। এই ভাষণটি সহ মোট ৭৭ টি গুরুত্বপূর্ণ নথিকে একইসাথে স্বীকৃতি দেওয়া হয়। ইউনেস্কো পুরো বিশ্বের গুরুত্বপূর্ণ দলিলকে সংরক্ষিত করে থাকে। ‘মেমোরি অফ দ্য ওয়ার্ল্ড ইন্টারন্যাশনাল রেজিস্টারে (এমওডব্লিউ) ’ ৭ মার্চের ভাষণসহ এখন পর্যন্ত ৪২৭ টি গুরুত্বপূর্ণ নথি সংগৃহীত হয়েছে।

পাকিস্তান সরকার ৭ মার্চ ১৯৭১ সালে রেডিও ও টেলিভিশনের মাধ্যমে ভাষণটি প্রচার করার অনুমতি দেয় নি। সরকারের নিষেধাজ্ঞা সত্ত্বেও তৎকালীন পাকিস্তান আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র কর্পোরেশনের চেয়ার‍ম্যান এ এইচ এম সালাহউদ্দিন ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক একইসঙ্গে তৎকালীন ফরিদপুর জেলার পাঁচ আসনে সংসদ সদস্য এম আবুল খায়ের ভাষণটি ধারণ করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেন।তাদের এ কাজে সাহায্য করেন তৎকালীন পাকিস্তান সরকারের চলচ্চিত্র বিভাগের চলচ্চিত্র পরিচালক ও অভিনেতা আবুল খায়ের, যিনি ভাষণের ভিডিও ধারণ করেন। তাদের সঙ্গে তৎকালীন তথ্য মন্ত্রণালয়ের প্রযুক্তিবিদ এইচ এন খোন্দকার ভাষণের অডিও রেকর্ড করেন।

অডিও রেকর্ডটি এম আবুল খায়েরের মালিকানাধীন রেকর্ড লেবেল ঢাকা রেকর্ড বিকশিত এবং আর্কাইভ করা হয়। পরে, অডিও ও ভিডিও রেকর্ডিংয়ের একটি অনুলিপি শেখ মুজিবকে হস্তান্তর করা হয় এবং অডিওর একটি অনুলিপি ভারতে পাঠানো হয়। সেই সাথে অডিওর ৩০০০ অনুলিপি করে তা সারা বিশ্বে ভারতীয় রেকর্ড লেবেল এইচএমভি রেকর্ডস দ্বারা বিতরণ করা হয়।

নিউজটি করেছেন : তানভীর মেহেদী, বরিশাল আঞ্চলিক প্রতিনিধি
{{ reviewsTotal }}{{ options.labels.singularReviewCountLabel }}
{{ reviewsTotal }}{{ options.labels.pluralReviewCountLabel }}
{{ options.labels.newReviewButton }}
{{ userData.canReview.message }}

এ জাতীয় আরো খবর

বার্সাকে হারিয়ে চ্যাম্পিয়নস লিগ জয়ের স্বপ্নের কথা বললেন এমবাপ্পে
বার্সাকে হারিয়ে চ্যাম্পিয়নস লিগ জয়ের স্বপ্নের কথা ...
মৌলভীবাজারে তিন উপজেলায় মনোনয়ন জমা দিলেন ৩৭জন প্রার্থী
মৌলভীবাজারে তিন উপজেলায় মনোনয়ন জমা দিলেন ৩৭জন প্রা...
যশোর শার্শার বেলতলা বাজারে গুটি আম বেচাকেনা শুরু
যশোর শার্শার বেলতলা বাজারে গুটি আম বেচাকেনা শুরু
৫ দিনের ছুটি শেষে আমদানি-রপ্তানি কার্যক্রম শুরু বেনাপোল বন্দরে
৫ দিনের ছুটি শেষে আমদানি-রপ্তানি কার্যক্রম শুরু বে...
গাজীপুরের কালিয়াকৈর এ মোটরসাইকেলে জড়ে গেলে তাজা ২ প্রাণ
গাজীপুরের কালিয়াকৈর এ মোটরসাইকেলে জড়ে গেলে তাজা ২...
নানান আয়োজনে শুভ নববর্ষ ১৪৩১ পহেলা বৈশাখ উদযাপনে গুইমারা রিজিয়ন
নানান আয়োজনে শুভ নববর্ষ ১৪৩১ পহেলা বৈশাখ উদযাপনে গ...
গুইমারায় শুভ নববর্ষ ১৪৩১ উপলক্ষে মঙ্গল শোভাযাত্রা
গুইমারায় শুভ নববর্ষ ১৪৩১ উপলক্ষে মঙ্গল শোভাযাত্রা
আরও ৩ দেশ থেকে একযোগে ইসরাইলে হামলা
আরও ৩ দেশ থেকে একযোগে ইসরাইলে হামলা
সালমানের বাড়ির সামনে গুলি ছুঁড়েছে দুর্বৃত্তরা!
সালমানের বাড়ির সামনে গুলি ছুঁড়েছে দুর্বৃত্তরা!
যুবকের পায়ুপথ থেকে বের করা হলো ৬ ইঞ্চি ডাব
যুবকের পায়ুপথ থেকে বের করা হলো ৬ ইঞ্চি ডাব
বার্সাকে হারিয়ে চ্যাম্পিয়নস লিগ জয়ের স্বপ্নের কথা বললেন এমবাপ্পে
বার্সাকে হারিয়ে চ্যাম্পিয়নস লিগ জয়ের স্বপ্নের কথা ...
মৌলভীবাজারে তিন উপজেলায় মনোনয়ন জমা দিলেন ৩৭জন প্রার্থী
মৌলভীবাজারে তিন উপজেলায় মনোনয়ন জমা দিলেন ৩৭জন প্রা...
যশোর শার্শার বেলতলা বাজারে গুটি আম বেচাকেনা শুরু
যশোর শার্শার বেলতলা বাজারে গুটি আম বেচাকেনা শুরু
৫ দিনের ছুটি শেষে আমদানি-রপ্তানি কার্যক্রম শুরু বেনাপোল বন্দরে
৫ দিনের ছুটি শেষে আমদানি-রপ্তানি কার্যক্রম শুরু বে...
গাজীপুরের কালিয়াকৈর এ মোটরসাইকেলে জড়ে গেলে তাজা ২ প্রাণ
গাজীপুরের কালিয়াকৈর এ মোটরসাইকেলে জড়ে গেলে তাজা ২...
নানান আয়োজনে শুভ নববর্ষ ১৪৩১ পহেলা বৈশাখ উদযাপনে গুইমারা রিজিয়ন
নানান আয়োজনে শুভ নববর্ষ ১৪৩১ পহেলা বৈশাখ উদযাপনে গ...

Log in

Not registered? Join us FREE